মেঘের দেশ সাজেক ভ্যালি ও হাজাছড়া ঝর্ণা

sejek-vally.gif

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ  বঙ্গোপ সাগরের কোল ঘেষে ছোট্ট একটি দেশ বাংলাদেশ।অপরূপ প্রাকৃতিক শোভামণ্ডিত আমাদের এই বাংলাদেশ।পাহাড়, নদী, বন, দিগন্তজোড়া ফসলের মাঠ আর বৃক্ষলতায় আচ্ছাদিত সবুজে ঘেরা এক খন্ড বাংলাদেশ।

এছোট্ট দেশেরই অনেক বাসিন্দা আছেন যারা বিশ্বভ্রমণ করে বেড়াচ্ছেন, কিন্তু নিজের দেশটিকেই হয়তো ভাল করে দেখা হয়নি।এদের সম্পর্কেই কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বলেছেন:

বহু দিন ধ’রে বহু ক্রোশ দূরে
বহু ব্যয় করি বহু দেশ ঘুরে
দেখিতে গিয়েছি পর্বতমালা,
দেখিতে গিয়েছি সিন্ধু।
দেখা হয় নাই চক্ষু মেলিয়া
ঘর হতে শুধু দুই পা ফেলিয়া
একটি ধানের শিষের উপরে
একটি শিশিরবিন্দু।

 

রূপসী বাংলা বর্ণনাতীত রূপের একটি ঝলকের নাম সাজেক ভ্যালী। আপনার যদি কখনো মেঘের দেশে ঘুরে বেড়ানোর ইচ্ছা হয়, তাহলে আপনি যেতে পারেন এই সাজেক ভ্যালিতে।কারণ এটিকে বলা যায় মেঘের রাজ্য।আপনি যদি সেখানে যান, তাহলে আপনার মনে হবে, আপনি মেঘের উপরে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। আপনি হয়তো বসে আছেন, কিন্তু আপনার পায়ের নীচে খেলা করছে মেঘেরা।ভাবতেই কেমন রোমাঞ্চিত হয়ে ওঠার ব্যাপার।আর সে কারণেই ভ্রমণ পিপাসু মানুষের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে রাঙামাটি জেলার বাঘাইছড়ি উপজেলায় অবস্থিত সাজেক ভ্যালি ।

সাজেক ভ্যালি বাংলাদেশের রাঙ্গামাটি জেলার বাঘাইছড়ি উপজেলার অন্তর্গত সাজেক ইউনিয়নের একটি বিখ্যাত পর্যটন আকর্ষণ । সাজেক ভ্যালি রাঙামাটি জেলার সর্বউত্তরের মিজোরাম সীমান্তে অবস্থিত। সাজেকের উত্তরে ভারতের ত্রিপুরা , দক্ষিণে রাঙামাটির লংগদু , পূর্বে ভারতের মিজোরাম , পশ্চিমে খাগড়াছড়ির দীঘিনালা অবস্থিত । সাজেক হচ্ছে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় ইউনিয়ন ; যার আয়তন ৭০২ বর্গমাইল । এখানে সাজেক বিজিবি ক্যাম্প অবস্থিত । সাজেকের বিজিবি ক্যাম্প বাংলাদেশের সর্বোচ্চ উঁচুতে অবস্থিত বিজিবি ক্যাম্প । বিজিবি সদস্যদের সুষ্ঠ পরিকল্পনায় , বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কার্যক্রমের দ্বারাই বর্তমান সাজেকের এই ব্যাপক উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে ।

বর্তমানে সাজেকে ভ্রমণরত পর্যটকদের জন্য প্রায় সকল ধরণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয় । সারাবছরই সাজেক যাওয়া যায়। আর সাজেকে পাহাড়ধস বা রাস্তাধস এরকম কোন ঝুকি নেই । সাজেক রুইলুইপাড়া এবং কংলাক পাড়া এই দুটি পাড়ার সমন্বয়ে গঠিত । ১৮৮৫ সালে প্রতিষ্ঠিত রুইলুই পাড়ার উচ্চতা সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় ১৭২০ ফুট । আর ১৮০০ ফুট উচ্চতায় অবস্থিত কংলাক পাহাড়-এ কংলাক পাড়া অবস্থিত । সাজেকে মূলত লুসাই ,পাংখোয়া এবং ত্রিপুরা আদিবাসী বসবাস করে । সাজেকের কলা ও কমলা বেশ বিখ্যাত । রাঙামাটির অনেকটা অংশই দেখে যায় সাজেক ভ্যালি থেকে । তাই সাজেক ভ্যালিকে বলা হয় রাঙামাটির ছাদ ।