নির্বাচনে পেশাদারিত্বের সাথে সম্পূর্ণ নিরপেক্ষভাবে দাায়িত্ব পালন করবে পুলিশ: এসপি মাসুদ

sp-cox.jpg

মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী :

ইতিমধ্যে অনুষ্ঠিত কক্সবাজার জেলার ৬ টি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে পুলিশ সহ অন্যান্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী যেভাবে নিরপেক্ষভাবে দায়িত্বপালন করেছে, সেভাবে কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনেও পেশাদারিত্বের সাথে সম্পূর্ণ নিরপেক্ষভাবে দাায়িত্ব পালন করবে ইনশাল্লাহ।

অবাধ, সুষ্ঠু, সুন্দর ও জবাবদিহিমূলক নির্বাচন উপহার দেয়ার জন্য কক্সবাজার জেলা পুলিশ বদ্ধ পরিকর। ভোট কেন্দ্রে ভোটারবান্ধব নিরাপদ পরিবেশ বজায় রাখতে সন্ত্রাস ও যেকোনো ধরনের অযাচিত চাপের কাছে পুলিশ ও অন্যান্য বাহিনীর সদস্যরা কোন অবস্থাতেই নথি স্বীকার করবেনা। ভোটকেন্দ্রে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিঘ্ন সৃষ্টি করতে চাইলে, সন্ত্রাস সৃষ্টি করতে চাইলে, কিংবা ভীতিকর অবস্থা সৃষ্টি করতে চাইলে আইনের সর্ব্বোচ্চ প্রয়োগের মাধ্যমে তা কঠোরহস্তে দমন করা হবে।

এসপি এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম আরো বলেন-পুরো কক্সবাজার সদর উপজেলা নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তার চাদরে ইতিমধ্যে ঢেকে দেয়া হয়েছে। কোন অবান্ঞ্চিত শক্তিকে ভোটকেন্দ্রের আশেপাশে ভিড়তে দেয়া হবেনা।

রোবাবার ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দায়িত্বে নিয়োজিত পুলিশ অফিসারদের উদ্দ্যেশে ব্রিফিং প্যারেডে কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম প্রধান অতিথি বক্তব্যে একথা বলেন।

কক্সবাজার পুলিশ লাইন্সে শনিবার ৩০ মার্চ সকালে অনুষ্ঠিত উক্ত ব্রিফিং প্যারেডে অন্যান্যদের মধ্যে আরো বক্তৃতা করেন-অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মোহাম্মদ ইকবাল হোসাইন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) আতিকুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার (সদর) মু: সাইফুল ইসলাম, সদর মডেল থানার ওসি ফরিদ উদ্দিন খন্দকার প্রমুখ।

নির্বাচনে কোন ধরনের গোলযোগ সৃষ্টি করে পরিবেশ অশান্ত করতে চাইলে তা কঠোর হস্তে দমন করা হবে বলে উল্লেখ করে কক্সবাজারের পুলিশ সুপার এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম সিবিএন-কে জানান- প্রতিদ্বন্দ্বী কোন পক্ষকে কোনপ্রকার প্রভাব বিস্তার করতে সুযোগ দেয়া হবেনা। তিনি বলেন-অন্ত্যন্ত শান্তিপুর্ণ ও ভীতিমুক্ত পরিবেশে ভোট গ্রহন করা হবে ইনশাল্লাহ। চিহ্নিত ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রগুলোতে বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। এসপি এ.বি.এম মাসুদ হোসেন বিপিএম আরো জানান-পর্যাপ্ত স্ট্রাইকিং ফোর্স স্টেনবাই বাই রাখা হয়েছে।

সদর উপজেলা ভৌগলিক এরিয়ায় পাশছাড়া কোন বহিরাগত আসলেই আইনের আওতায় আনা হবে। ব্রিফিং প্যারেডে অন্যান্যের মধ্যে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (চকরিয়া সার্কেল) কাজী মতিউল হক, সহকারী পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোহাম্মদ শহীদুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) বাবুল চন্দ্র বণিক, সহকারী পুলিশ সুপার (মহেশখালী সার্কেল) রতন কুমার দাশ গুপ্ত, সদর মডেল থানার ওসি (তদন্ত) সহ উর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।