মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী যাচ্ছেন ভারত : জোরদার হচ্ছে সামরিক সহযোগিতা

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী জেমস ম্যাটিস চলতি সপ্তাহে ভারত সফরে যাচ্ছেন। সফরকালে প্রতিরক্ষা সহযোগিতাসহ আফগান নিরাপত্তা বিষয় সবচেয়ে গুরুত্ব পাবে।
ম্যাটিস সোমবার দিনের শেষে ভারতে আসবেন। সফরকালে তিনি দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও তার নতুন প্রতিরক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করবেন।

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জানুয়ারিতে ক্ষমতায় আসার পর এই প্রথম মার্কিন কোনো শীর্ষ কর্মকর্তা ভারত সফরে আসছেন।
পেন্টাগণের এক বিবৃতিতে বলা হয়, ভারতকে যুক্তরাষ্ট্র গুরুত্বপূর্ণ ও প্রভাবশালী অংশীদার মনে করে।
ইউএস ইন্ডিয়া স্ট্র্যাটেজিক পার্টনারশিপ ফোরামের প্রেসিডেন্ট মুকেশ অঘি বলেন, জুনে ট্রাম্প ও মোদি ওয়াশিংটনে বৈঠক করেছেন। আর ম্যাটিসের এ সফর আভাস দিচ্ছে উভয় দেশের রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ প্রতিরক্ষা সহযোগিতাকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিচ্ছেন।

এদিকে আফগানিস্তান বিষয়েও উভয়দেশের রয়েছে অভিন্ন অবস্থান। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশটি নিয়ে সম্প্রতি ট্রাম্প যে নতুন কৌশল ঘোষণা করেছে তাতে সেখানে আরো হাজার হাজার মার্কিন সৈন্য মোতায়েনের পথ পরিষ্কার করা হয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট আফগানিস্তানে অর্থনৈতিক সহযোগিতা আরো বাড়ানোর জন্যে ভারতের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। একইসঙ্গে তিনি সন্ত্রাসীদের সহযোগিতার জন্যে ভারতের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানের তীব্র সমালোচনা করেছেন।
পেন্টাগণের বিবৃতিতে আরো বলা হয়, আফগানিস্তানের গণতন্ত্র, স্থিতিশীলতা, সমৃদ্ধি ও নিরাপত্তার ক্ষেত্রে ভারতের গুরুত্বপূর্ণ অবদানের প্রশংসা করবেন ম্যাটিস।
এদিকে যুক্তরাষ্ট্র ২০১৬ সালে ভারতকে বড়ো ধরণের প্রতিরক্ষা অংশীদার হিসেবে বর্ণনা করেছে। ম্যাটিসের পূর্বসুরি এসটন কার্টার ভারতের সাথে দৃঢ় প্রতিরক্ষা সম্পর্ক গড়ে তুলেছিলেন। বর্তমান মার্কিন প্রশাসনের এ ধারা পরিবর্তনের কোনো আভাস পাওয়া যায়নি।
এছাড়া ট্রাম্প আঞ্চলিক শান্তি ও স্থিতিশীলতায় অবদান রাখায় এবং সামরিক সরঞ্জাম কেনার কারণে ভারতের প্রশংসা করেছেন।

ধারণা করা হচ্ছে, সফরকালে ম্যাটিস ভারতের সাথে সম্ভাব্য এক হাজার ৫শ কোটি ডলারের প্রতিরক্ষা চুক্তি করবেন যার আওতায় নয়াদিল্লীকে লকহেড মার্টিন এফ-১৬ এবং ব্লক ৭০ বিমান ক্রয় করতে হবে।
ভারত বলছে, চীন ও পাকিস্তানের আকাশ ক্রমবর্ধমান হুমকি মোকাবেলায় তাদের অন্তত এক ইঞ্জিন বিশিষ্ট ১ শ’ যুদ্ধবিমান দরকার।

কাবুলে বোমা হামলা
আফগান রাজধানী কাবুলের পশ্চিমাঞ্চলে রোববার বোমা হামলা চালানো হয়েছে। এতে কি পরিমাণ হতাহত হয়েছে তা জানা যায়নি।
প্রত্যক্ষদর্শীরা এ কথা জানায়। খবর সিনহুয়ার

সূত্র মতে, স্থানীয় সময় সকাল ১০টা ৫০ মিনিটে নগরীর পুলিশ ডিস্ট্রিক্ট ফাইভের কারগা লেক রোড সংলগ্ন এলাকায় বিস্ফোরণ ঘটে। ওই এলাকা দিয়ে যাওয়া সেনা কনভয়ই এ হামলার সুনির্দিষ্ট লক্ষ্য বলে মনে করা হচ্ছে। এছাড়া ধারণা করা হচ্ছে এটি একটি আত্মঘাতী হামলা।
বিস্ফোরণের পরপরই ওই এলাকা থেকে ধোঁয়ার কুন্ডলি পাক খেতে দেখা গেছে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা আরো জানান, বিস্ফোরণের পর পরই ওই এলাকায় পুলিশের গাড়ি ও অ্যাম্বুলেন্সকে ছুটে যেতে দেখা গেছে।

সতর্কতামূলক পদক্ষেপ হিসেবে নিরাপত্তা বাহিনী ওই এলাকা ঘিরে রেখেছে।
হামলার দায়িত্ব এখনো কেউ স্বীকার করেনি।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.