মহেশখালীতে হত্যা মামলার তিন আসামিকে গ্রেপ্তার

ওয়ান নিউজঃ কক্সবাজারের মহেশখালীতে হত্যা মামলার তিন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১৫। সোমবার সন্ধ্যায় বান্দরবানের লামা ও কক্সবাজার শহর থেকে তাদের আটক করা হয়।

পরে আসামিদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে মহেশখালী উপজেলার কালারমারছড়া ইউনিয়নের ছামিরাঘোনা এলাকা থেকে ১০টি অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করে র‌্যাব।

আটককৃতরা হলেন- মহেশখালী ছামিরাঘোনা এলাকার রফিকুল ইসলাম প্রকাশ মামুন, একই ইউনিয়নের চিকনিপাড়ার মোহাম্মদ রিফাত ও মোহাম্মদ শাহ ঘোনা এলাকার ছেলে আয়ুব আলী।

র‌্যাব-১৫ এর পাঠানো এক তথ্যে অস্ত্রসহ হত্যা মামলার আসাসি গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

র‌্যাবের পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গেল ৫ নভেম্বর মহেশখালীর কালারমারছড়ায় আত্মসমর্পণ করা জলদস্যু আলাউদ্দিনকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়।

এ ঘটনায় তার ভাই বাদী হয়ে ১৮ জনকে অভিযুক্ত করে একটি হত্যা মামলা করেন। ঘটনার পর থেকে র‌্যাব উক্ত মামলার তদন্ত শুরু করে।

সোমবার গোপন সংবাদে বান্দরবানের লামার ফাইতং থেকে হত্যাকাণ্ডের প্রধান আসামি রফিকুল ইসলাম মামুন এবং তার সহযোগী রিফাতকে আটক করা হয়। তাদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে এজাহার নামীয় ১২ নম্বর আসামি আয়ুব আলীকে কক্সবাজার শহরের পাহাড়তলী এলাকা থেকে আটক করা হয়।

র‍্যাব জানিয়েছে, নিজেদের অপহরণ করা হয়েছে দাবি করে আত্মগোপনে ছিলেন তারা।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ব্যক্তিদের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব কালারমারছড়ার ছামিরাঘোনা পাহাড়ের মাটি খুঁড়ে ৪টি একনলা বন্দুক, থ্রী কোয়ার্টার বন্দুক একটি, ৩টি কাটা বন্দুক, ১টি বিদেশি পিস্তল, ১টি ম্যাগাজিন, ২ রাউন্ড তাজা গুলি ও ৫ রাউন্ড তাজা কার্তুজ উদ্ধার করে।

আটককৃতদের মহেশখালী থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান র‌্যাব কর্মকর্তা মেজর শেখ ইউসুফ আহমেদ।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.