মরুর দেশে বিশ্বের প্রথম ভাসমান রিসোর্ট, খুলবে ২০২৩

মুহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন
মরুভূমির দেশ সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই পর্যটকদের জন্য অত্যন্ত আকর্ষণীয় শহর। দেশটির বাণিজ্যিক রাজধানীর জুমেইরাহ বিচ রোডে জনপ্রিয় সমুদ্র সৈকতের কাছে তাক লাগানো বিশ্বের প্রথম ভাসমান রিসোর্ট তৈরি হতে যাচ্ছে। ২০২৩ সালের মধ্যেই পর্যটকদের জন্য রিসোর্টটি খুলে দেওয়া হবে বলে জানা গেছে।

বিলাসবহুল ভাসমান রিসোর্টটিতে কী কী রয়েছে তা জানলে চোখ কপালে উঠতে পারে। ১৫৬টি অত্যাধুনিক রুম ও স্যুটি এবং একটি প্রধান ভাসমান ভবন রয়েছে। রিসোর্টটির আরেকটি বৈশিষ্ট্য হলো- এখানে ১২টি এক্সক্লুসিভ ভিলা থাকছে যেগুলো শুধু ভাসবেই না, হাউসবোটের মতো ঘুরেও বেড়াবে এক জায়গা থেকে অন্যত্র।

ভিলায় থাকবে দুটি তল, তার মধ্যে একটিতে থাকবে প্যানোরামিক জানালা। ছাদে থাকবে ইনফিনিটি পুল। ভিলাগুলোর প্রতিটিতে স্মার্ট হোম প্রযুক্তির সঙ্গে সম্পূর্ণ ইন্টেরিওর ডিজাইন থাকবে বলে জানা গেছে। এছাড়া রিসোর্টের পরিবেশ ইকো-ফ্রেন্ডলি ও সোলার প্যানেলের উপযুক্ত করে ডিজাইন করা হয়েছে।

পাঁচ তারকা এ সম্পত্তিতে অন-সাইট রেস্তোরাঁ ও বার, একটি স্পা ও একাধিক পুল থাকবে। অতিথিদের সুবিধার জন্য বুটিক শপ, ভোজনের আলাদা ব্যবস্থা থাকবে বলে জানা গেছে। ভাসমান রিসোর্টটিতে একটি কাচের পিরামিডসহ চারটি অংশ থাকবে। শুধু তাই নয়, রিসোর্টটি একটি ভাসমান হেলিপ্যাড ও ১৬টি ইয়াট পর্যন্ত পার্কি করতে পারবে।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.