বর্তমান সরকারের সময়েই ঈদগাঁওতে সবচেয়ে বেশী উন্নয়ন হয়েছে – এমপি কমল 

 

 

নীতিশ বড়ুয়াঃ

কক্সবাজার-৩ (সদর-রামু) আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সাইমুম সরওয়ার কমল বলেছেন, শেখ হাসিনার সরকারের বর্তমান সময়েই কক্সবাজার ঈদগাঁহতে সবচেয়ে বেশী উন্নয়ন হয়েছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কক্সবাজারের উন্নয়নে যেমন আন্তরিক, তেমনি আমরা সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এলাকার উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি। তিনি বলেন, ঈদগাঁহ বাজারের উন্নয়নে দুইকোটি আশি লক্ষ টাকা বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে। তৎমধ্যে অর্ধেক কাজ সম্পন্ন হয়েছে, বাকি কাজ চলতি মৌসুমে শীঘ্রই সম্পন্ন করা হবে। এমপি কমল বলেন, ভুমি অফিস থেকে বংকিম বাজার পর্যন্ত রাস্তার কাজ শিঘ্রই শুরু হবে। আজ দুই কোটি ত্রিশ লক্ষ টাকা ব্যয়ে মুক্তিযোদ্ধা এসটিএম রাজামিয়া সেতুর নির্মাণ কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হলো। জাকির পাড়া-ভাদিতলা রাস্তায় দুইকোটি টাকার কাজ প্রায় সমাপ্তীর পথে। আমরা মাছুয়াখালী রাস্তা, ভূতিয়াপাড়া রাস্তা, কালির ছড়ায় রাস্তা ও তিনটি সেতু, চাঁেদরঘোনা ব্রিজ ও রাস্তা, মেহেরঘোনায় রাস্তা সহ অনেক রাস্তা ও সেতু নির্মাণ করেছি। এছাড়া মাইজপাড়া ও পাল পাড়া রাস্তায় আলোক সজ্জা করেছি। ভোমরিয়াঘোনা বেড়িবাঁধ নির্মাণ কাজ শীঘ্রই শুরু হবে  উল্লেখ করে তিনি বাকি কাজ গুলোও পর্যায়ক্রমে নির্মাণ ও সংস্কার করা হবে বলে উল্ল্যেখ করেন।

বুধবার (১ নভেম্বর) সদর উপজেলার ঈদগাহ খালের উপর নির্মিতব্য মুক্তিযোদ্ধা এসটিএম রাজামিয়া সেতুর নির্মাণ কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। আলোচনা সভার শুরুতেই সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ বীরমুক্তিযোদ্ধা এসটিএম রাজা মিয়ার নামে নিমিতব্য সেতুর ভিত্তি প্রস্তর উদ্বোধন করেন।

সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি বলেন, মায়ানমানমার সরকারের অমানবিক নির্যাতনের শিকার হয়ে আমাদের দেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের পক্ষে আমরাই সর্বপ্রথম কথা বলেছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রোহিঙ্গাদের সকল প্রকার সহযোগিতা করে আসছেন। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবাইদুল কাদের এমপি’র নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতৃবৃন্দ নিরলস ভাবে রোহিঙ্গাদের সেবা করে আসছি। অন্যদিকে বিএনপি নেত্রী রোহিঙ্গাদের সেবার নামে গাড়ী বহর নিয়ে রাজনীতি করতে এসেছে, তাও আবার অনেক পরে। যারা মানবতার সেবার নামে রাজনীতি করে তাদের প্রতিহত করতে হবে।

ঈদগাঁহ ইসলামাবাদ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগ সভাপতি নুর ছিদ্দিকীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন কক্সবাজার সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আবু তালেব, সাধারণ সম্পাদক, কক্সবাজার জেলা পরিষদ সদস্য মাহমুদুল করিম মাদু, কক্সবাজার জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সোহেল জাহান চৌধুরী, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হুমায়ুন তাহের চৌধুরী হিমু, ফরিদুল আলম চেয়াম্যান, যুগ্ন সম্পাদক বদিউল আলম আমির, সাংগঠনিক সম্পাদক লুৎফর রহমান আজাদ, পোকখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মোজাহের আহমদ, পোকখালী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন, কক্সবাজার জেলা যুবলীগের সাংস্কৃদিক সম্পাদক হুমায়ুন কবির হিমু, জালালাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি সেলিম মোর্শেদ ফরাজী, সাধারণ সম্পাদক মমতাজুল ইসলাম খান, ঈদগাঁহ আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক তারেক আজিজ, সদর যুবলীগের সহ-সভাপতি ওসমান সরওয়ার আলম ডিপো এমইউপি, মিজানুল হক, যুবলীগ নেতা হাসান আজিজ, ঈদগাঁহ জাতীয় শ্রমিকলীগের আহবায়ক আমজাদ হোসেন ছোটন রাজা, সদস্য সচিব আবু বক্কর ছিদ্দিক বান্ডি মেম্বার, ঈদগাঁহ ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি নওশাদ মাহমুদ, ঈদগাঁহ ছাত্রলীগের সভাপতি রাশেদ উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক আবু হেনা বিশাদ প্রমুখ।

পরে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রীর আগামী ৪ নভেম্বর কক্সবাজার আগমন উপলক্ষে এক প্রস্তুতি সভায় মিলিত হন সাইমুম সরওয়ার কমল এমপি।

Comments are closed.