কনক সারোয়ারের বোন রাকা ৫ দিনের রিমান্ডে

অনলাইন ডেস্ক
পৃথক দুই মামলায় সমালোচিত সাংবাদিক ও যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ড. কনক সারোয়ারের বোন নুসরাত শাহরিন রাকার পাঁচদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বুধবার ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের দুজন বিচারক পৃথক আদেশে এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এদিন তাকে আদালতে হাজির করে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উত্তরা পশ্চিম থানার এসআই বদরুল মিল্লাত ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় সাতদিনের রিমান্ড আবেদন করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ঢাকার মহানগর পাবলিক প্রসিকিউটর আব্দুল্লাহ আবু রিমান্ড আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন।
আসামিপক্ষে ঢাকা বারের সাবেক সভাপতি মাসুদ আহমেদ তালুকদার, সাবেক সাধারণ সম্পাদক ওমর ফরুক ফারুকী ও ঢাকা বারের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক খন্দকার হযরত আলী রিমান্ড বাতিলপূর্বক জামিন আবেদন করেন। শুনানি শেষে ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবু বকর ছিদ্দিক তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদেশ দেন।

একই তদন্ত কর্মকর্তা উত্তরা পশ্চিম থানার মাদক মামলায় নুসরাত শাহরিন রাকার সাতদিনের রিমান্ড আবেদন করেন৷ আসামিপক্ষে ওমর ফারুক ফারুকীসহ কয়েকজন রিমান্ড বাতিল পূর্বক জামিন আবেদন করেন। শুনানি শেষে বিচারক মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট নিভানা খায়ের জেসী দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদেশ দেন।

সোমবার দিবাগত রাতে রাজধানীর উত্তরায় অভিজান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের সদস্যরা। ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করে রাষ্ট্রবিরোধী তৎপরতার কারণে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এরপর তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একটি এবং মাদক আইনে আরেকটি মামলা করে র‌্যাব।

র‌্যাব জানায়, বিদেশে অবস্থানকারী একটি ‘চক্র’ দেশে থাকা ‘এজেন্টদের যোগসাজশে’ ভার্চ্যুয়ালি ‘রাষ্ট্রবিরোধী অপপ্রচার’ চালাচ্ছে, এমন বিষয় র‌্যাবের গোয়েন্দা নজরে আসার পর তাদের ধরতে সক্রিয় হন তারা। ভাইকে সাহায্য করতে এসব কর্মকাণ্ডের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন রাকা।

মন্তব্যসমূহ বন্ধ করা হয়.