বেনাপোল বন্দরকে অটোমেশন ও নিরাপত্তার জন্য সিসি ক্যামেরার আওতায় আনা হবেঃশাজাহান খান এমপি

ইয়ানুর রহমান : বেনাপোল স্থল বন্দরে যে পন্যজট যানজট লেগে থাকে তা অতি তাড়াতাড়ি সমাধান হবে। আপনারা জানেন ৩ টি ইয়ার্ডে ১০০ কোটি টাকা ব্যায়ে ৮ টি শেড নির্মান করা হচ্ছে। এ গুলো নির্মান হলে যানজট আর থাকবে না। বেনাপোল স্থল বন্দরকে অটোমেশান এবং বেনাপোল থেকে যশোর পর্যান্ত ফোর লেন রাস্তা তৈরী করা হবে। বন্দরের নিরাপত্তার জন্য খুব দ্রæত বেনাপোল বন্দরকে সিসি ক্যামেরার আওতায় নেওয়া হবে। তিনি বেনাপোল পৌর মেয়র এর প্রশংসা করে বলেন না দেখলে বুঝা যাবে না এত অল্প সময়ের ভিতর একজন তরুন নেতা কত বিচক্ষন না হলে বেনাপোলের এত উন্নয়ন করতে পারে। বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়া ছিলেন অন্ধ। তিনি আওয়ামীলীগের উন্নয়ন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। তিনি চোখে দেখেন না লন্ডন থেকে চোখ অপারেশন করে এখন তিনি চোখে দেখছেন। তিনি বলছেন  টেকসই গনতন্ত্র না হলে তার কোন মুল্য নাই। আজ পদ্মসেতু প্রধানমন্ত্রী শেক হাসিনার অঙ্গীকার ছিল দেশের টাকায় হবে তা হচ্ছে। জিয়াউর রহমান বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে ক্ষমতায় এসেছিল । আজ তার স্ত্রী ৫ বার জন্ম তারিখ নিয়ে দেশে সমালোচনায় মুখর হয়ে উঠেছে। বিএনপি উন্নয়ন চায় না। বিএনপি দিনের পর দিন শুধু বলতে জানে মিথ্যা কথা । কথা গুলো বললেন বেনাপোল আন্তর্জাতিক প্যাসেঞ্জার টার্মিনাল অপরেশনাল কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন উপলক্ষে সুধী সমাবেশে  প্রধান অতিথী হিসাবে নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান এমপি।

বেনাপোল বন্দর কর্তৃপক্ষ আয়োজিত শুক্রবার বেলা ২ টার সময় স্থল বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান তপন কুমার চক্রবর্তীর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথী হিসাবে গনপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের নৌপরিবহনমন্ত্রী শাহজাহান খান এমপি বেনাপোল আন্তর্জাতিক প্যাসেঞ্জার টার্মিনালের ফিতা কেটে শুভ উদ্বোধন করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন  নৌপরিবহন মন্ত্রনালয়ের সচিব অশোক কুমার মাধাব রায়, কাষ্টমস কমিশনার শওকাত হোসেন, বেনাপোল বন্দরের পরিচালক আব্দুর রউফ, শার্শা উপজেলা চেয়রম্যান সিরাজুল হক মঞ্জু, ৪৯ বিজিবির সিও লে. কর্নেল আরিফুল হক, বেনাপোল স্থল বন্দরের সিবিএ সাধারন সম্পাদক মনির হোসেন মজুমদার প্রমুখ।

২০০৬ সনে নির্মিত এ প্যাসেঞ্জার টার্মিনালটি পাসপোর্টযাত্রীদের জন্য তৈরী করা হলে ও দির্ঘ ১১ বছরে তা যাত্রীদের জন্য ব্যবহার হয়নি। স্থল বন্দর কর্তৃপক্ষ নানা গড়িমসি করে তাদের  প্রশাসনিক ভবন বানিয়ে রেখেছিল। ২০১৩ সনে ২৩ আগষ্ট একবার নৌপরিবহন মন্ত্রী এ টার্মিনালটি উদ্বোধন করলে ও তা চালু হয়নি একমাত্র বেনাপোল স্থল বন্দর কর্তৃপক্ষের কারনে।

নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান এমপি এর আগে বেলা ৩ টার সময় বেনাপোল কাষ্টমস ও স্থল বন্দরের নবনির্মিত ১০০ কোটি টাকা ব্যায়ে শেড গুলো দেখার জন্য এলাকা পরিদর্শন করেন।

Comments are closed.