বাইশ গজের প্রেমিকারা

ওয়ান নিউজ ক্রীড়া ডেক্সঃ কারও আপত্তি দাড়িতে, তো কারও বনিবনা নেই শাশুড়ির সঙ্গে। কারও পেশা গয়নার ডিজাইন, তো কেউ নাকি ইঞ্জিনিয়ার! টি-২০র ‘ওয়াগ’রা এমনই!

দেখতে দেখতে হয়ে গেল কুড়ি দিন। এমনিতেই আইপিএল মানে ক্রিকেট আর বিনোদনের জবরদস্ত ককটেল। আর এ বার তো তার দশ বছর! কে বলবে এখনও তার শৈশব কাটেনি! উত্তেজনায় পুরো তরুণ। মাঠে যখন ছক্কা হাঁকাচ্ছেন ক্রিকেটাররা, মাঠের বাইরেও কম যাচ্ছেন না তাদের ‘ওয়াগ’রা অর্থাৎ ওয়াইফ অ্যান্ড গার্লফ্রেন্ডরা…

আনুশকা শর্মা

ক্রিকেট আর বলিউডের সম্পর্ক আজকের নয়। তার নতুন উদাহরণ বিরাট কোহালি আর আনুশকা শর্মা। ভ্যালেন্টাইন্স ডে-তে আনুশকার ছবি পোস্ট করেন বিরাট। কাঁধে চোট লাগায়, অধিনায়কের পাশে থাকতে সঙ্গে সঙ্গে বেঙ্গালুরু চলে যান নায়িকা। এমনকী, দু’জনের দেহরাদুনে ছুটি কাটানোর ছবি ভাইরাল হয়ে গেলেও কেউই স্বীকার করেন না নিজেদের সম্পর্কের কথা। আরও একবার তাদের ‘ওপেন সিক্রেট’ সম্পর্ক সামনে চলে এল। সদ্য ইনস্টাগ্রামে নিজের দাড়ির ছবি পোস্ট করেছিলেন বিরাট। ক্যাপশন লিখেছেন, ‘এখনই দাড়ি ছাটতে পারছেন না।’ আনুশকা মন্তব্য করেন, ‘তুমি পারবেও না।’ এই না হলে, ভারতীয় ক্রিকেটের ফার্স্ট লেডি! সে যতই হোক না ‘আনঅফিশিয়াল’।

জেসিকা ব্রাটিচ

প্রায়ই আলোচনার মধ্যমণি মিশেল জনসন। কখনও হ্যান্ডেলবার গোঁফ রেখে, তো কখনও বিরাট কোহালিকে উস্কানিমূলক কথা বলে। কিন্তু সে সব নিয়ে যতই কথা হোক না কেন, কম নিউজপ্রিন্ট খরচ হয় না তার স্ত্রীকে নিয়েও। জেসিকা ব্রাটিচ জনসন শুধু যে সুন্দরী তাই নয়, ক্যারাটেতে তিনি ব্ল্যাক বেল্ট। যদিও এখন ক্যারেটে নয় পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন গয়না ডিজাইন করা। তবে তাদের বিয়েটা মোটেই নির্বিঘ্ন ছিল না। বিশেষ করে মিশেলের মা একদমই সহ্য করতে পারতেন না জেসিকাকে। অনেকবার সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, জেসিকার জন্যই নাকি তার ছেলে আলাদা হয়ে গেছে। যদিও মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের এই ফাস্ট বোলার স্ত্রীর পাশেই দাঁড়িয়েছিলেন।

লি ফারলং

তিনি সাবেক টিভি স্পোর্টস প্রেজেন্টার। পুরনো পেশা ছাড়লেও খেলাধুলোকে ছাড়েননি তিনি। স্বামী শেন ওয়াটসনের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ায় শুরু করেছেন বাচ্চাদের জন্য এক স্পোর্টস ক্লিনিক। ওয়াটসন যখন বেঙ্গালুরু রয়েল চ্যালেঞ্জার্সের হয়ে মাঠে নামছেন, তখন লি-ই সামলান ক্লিনিক। ওয়াটসন এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন, খেলা ছাড়া আর কোনও ব্যাপারেই নাকি তিনি মাথা ঘামান না। পুরোটাই বউয়ের দায়িত্বে। তার মানে, পত্নীর পুণ্যে পতির পুণ্য!

উম্মে আহমেদ শিশির

স্বামী সাকিব আল হাসান সদ্য বাংলাদেশের টি২০ টিমের অধিনায়ক হয়েছেন। কিন্তু স্ত্রীও কম যান না। যে কোনও ক্রিটেটারদের ‘ওয়াগ্‌’ তালিকার প্রথম স্থানটা ধরাবাধা উম্মে আহমেদ শিশিরের। বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জের মেয়ে সফ্‌টওয়্যার ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ছিলেন আমেরিকায়। সাকিবের সঙ্গে তার দেখা হয় ইংল্যান্ডে। সাকিব তখন কাউন্টি খেলতেন। প্রেমে পড়তে দেরি হয়নি। মিডিয়াকে লুকিয়ে প্রায় তিন বছর প্রেমপর্ব চলে দু’জনের। অবশেষে ২০১২ সালের ১২ ডিসেম্বরে ঢাকায় বিয়ে হয় তাদের।

দীপিকা পাল্লিকল

দীনেশ কার্তিকের সঙ্গে তার বিয়ে হয় ২০১৫ সালে। গুজরাত লায়ন্সের হয়ে খেলা স্বামীর মতো, দীপিকা পাল্লিকলও কম যান না। তিনিই প্রথম ভারতীয় স্কোয়াশ প্লেয়ার, যিনি পিএসএ র‌্যাঙ্কিংয়ে প্রথম দশে নিজের নাম করে নেন।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা

Comments are closed.