এপ্রিলের মধ্যভাগে কালবৈশাখীর সম্ভাবনা

ওয়ান নিউজঃ চলতি মাসে দেশের বিভিন্ন জায়গায় স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি খরা ও তীব্র কালবৈশাখীর আশঙ্কা রয়েছে। এছাড়া পাহাড়ি ঢলের কারণে উত্তর-পূর্বাঞ্চলে বন্যা ও বঙ্গোপসাগরে দুটি নিম্নচাপের আশঙ্কা করছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। ঝড়ো হাওয়ার সম্ভাবনার কারণে দেশের সমুদ্রবন্দরগুলোতে জারি করা হয়েছে ৩ নম্বর সর্তকতা।

বাতাসে হঠাৎ আর্দ্রতা বেড়ে যাওয়ায় গত মাসে সারাদেশে বৃষ্টির পরিমাণ ছিলো স্বাভাবিকের চেয়ে ১৫২ শতাংশ বেশি। পশ্চিমা লঘুচাপের সাথে পূবালী বায়ুর সংযোগ ঘটায় বজ্রঝড়সহ বৃষ্টি হয়েছে রাজধানীসহ বিভিন্ন জেলায়।

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে, চলতি মাসে দেশের মধ্যাঞ্চলসহ বেশকিছু এলাকায় স্বাভাবিকের চেয়ে গরমও পড়তে শুরু করেছে। চলতি বছরের সর্বোচ্চ ৩৮.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা সোমবার রেকর্ড করা হয়েছে চুয়াডাঙ্গায়। খরার পাশাপাশি চলতি মাসের মধ্যভাগে ভারী বৃষ্টির আশঙ্কা করছেন আবহাওয়াবিদেরা।

১৯৮০ সালের পর চলতি বছরই সবচেয়ে বেশি উত্তপ্ত হতে পারে বলে আশঙ্কা করছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। গরমের পাশাপাশি ঝড়-বৃষ্টির ধকলও বেশি সইতে হতে পারে দেশবাসীকে।

আবহাওয়ার বিরূপ আচরণের প্রভাব এরই মধ্যে দেখা যাচ্ছে দেশের বিভিন্ন জায়গায়। পাহাড়ি ঢলে সুনামগঞ্জে নষ্ট হয়েছে হাজার হাজার হেক্টর জমির বোরো ধান। নেত্রকোনায় ভেসে গেছে সাড়ে আট হাজার হেক্টরের আবাদ।

Comments are closed.