জয় দিয়ে যাত্রা রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর

ওয়ান নিউজ ক্রীড়া ডেক্সঃ জয়ের মধ্য দিয়ে ত্রয়োদশ আইপিএল অভিযান শুরু করল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর। সোমবার দুবাইতে টুর্নামেন্টের তৃতীয় ম্যাচে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে ১০ রানে হারিয়ে দিল বিরাট কোহলি বিগ্রেড। বিধ্বংসী বোলিংয়ের জন্য ম্য়ান অফ দ্য ম্য়াচ নির্বাচিত হয়েছেন যুজবেন্দ্র চাহাল। ৪ ওভার বল করে ১৮ রান দিয়ে ৩টি গুরুত্বপূর্ণ উইকেট শিকার করেন তিনি।

এই মরশুমের প্রথম দু’টি ম্যাচের তুলনায় এদিনের ম্যাচ ততটা উত্তেজনাপূর্ণ ছিল না।

প্রথমে ব্য়াট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৬৩ রান তুলেছিল ব্যাঙ্গালোর। টার্গেট তাড়া করতে নেমে ক্রমাগত ব্যাটিং বিপর্যয়ের মুখে পড়ে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ। বিশেষত চাহলের বিধ্বংসী বোলিং প্রতিপক্ষ শিবিরে কাঁপুনি ধরিয়ে দেয়। শেষ পর্যন্ত ১৯.৪ ওভারে ১৫৩ রানে অলআউট হয়ে যায় তারা। সেইসঙ্গে এই মরশুমের আইপিএলের প্রথম দক্ষিণ ভারতীয় ডার্বি ১০ রানে জিতে নিল কোহলির দল।

একটা সময় পর্যন্ত ম্যাচে ছিল হায়দরাবাদ। কিন্তু ১৫.২ ওভারে যুজবেন্দ্র চাহলের বলে সেট হয়ে যাওয়া বেয়ারস্টোর (৬১) আউট হয়ে যাওয়া এই ম্যাচের টার্নিং পয়েন্ট। তখনও অবশ্য লড়াই চালিয়ে যাচ্ছিলেন মণীশ পাণ্ডে। ব্যক্তিগত ৩৪ রানের মাথায় তিনিও চাহলের শিকার হন। এর পরে ম্যাচ ক্রমশ হায়দরাবাদের হাতের বাইরে চলে যেতে থাকে। চাহলই আজকের ম্যান অফ দ্য ম্যাচ। এছাড়া আরসিবির পেসার নভদীপ সাইনিও (৪ ওভারে ২৫ রান দিয়ে ২ উইকেট) প্রশংসা কুড়িয়েছেন ক্রিকেট বোদ্ধাদের।

এদিনের জয়ে স্বভাবতই সন্তোষ প্রকাশ করেছেন ব্যাঙ্গালোর অধিনায়ক। যুজবেন্দ্র চাহলের বোলিংয়ের ভূয়োসী প্রশংসা করেন তিনি। যুজবেন্দ্র চাহলের নির্দিষ্ট ওই ওভার খেলার মোড় পরিবর্তন করে দিয়েছে বলেও মন্তব্য করেছেন কোহলি। পাশাপাশি চাহলের প্রশংসা শোনা গিয়েছে হায়দরাবাদের অধিনায়কের গলাতেও। সেইসঙ্গে নিজের দলের এমন পারফরম্যান্সে হতাশা প্রকাশ করেছেন তিনি। খবর এই সময়।

Comments are closed.