‘ধানের শীষ এখন পেটের বিষ’

জে.জাহেদ, চট্টগ্রাম ব্যুরো:

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রাম-১৩ (আনোয়ারা-কর্ণফুলী) আসনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ ও মহাজোট মনোনীত প্রার্থী আলহাজ্ব সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদের সমর্থনে এক উঠান বৈঠকের আয়োজন করা হয়।

বুধবার (২৬ ডিসেম্বর) রাত সাড়ে ৮টায় উপজেলার ইছানগর বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়।

এতে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি শাহেদুর রহমান শাহেদের সঞ্চালনায় সভাপতিত্ব করেন স্থানীয় আওয়ামীলীগ নেতা আলহাজ্ব মীর্জা আবুল বশর।

এ উঠান বৈঠকে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আলহাজ্ব সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ।

বৈঠকে তিনি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও প্রয়াত পিতা সাবেক সংসদ সদস্য আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুকে স্মরণ করে বলেন, ‘ব্যক্তিগত স্বার্থ নয়, এলাকার উন্নয়নের স্বার্থে উপজেলা এনেছি। যদি আগামীতে নির্বাচিত হতে পারি। এলাকার চেহারা পাল্টে দেবো।’

তবে প্রতিমন্ত্রী এক পর্যায়ে তার বক্তব্যে স্বীকার করেন বলেন, উপজেলায় ১০/১২টি সড়ক এখনো সম্পন্ন করতে পারেননি। না পারার কারণ হিসেবে তিনি বিএনপি ঠিকাদারদের দায়ি করেন।

মা বোনদের উদ্দেশে নৌকার প্রার্থী জাবেদ বলেন, ধানের শীষ এখন পেটের বিষ হয়ে গেছে। আপনারা ধানের শীষের জন্য পাগল হবেন না।’

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব ফারুক চৌধুরী বলেন, ‘বিএনপির প্রার্থী পোস্টারে কর্ণফুলী উপজেলাকে স্বীকার করেন নি। এজন্য কর্ণফুলীবাসী তাকে প্রত্যাখান করেছে।

এমনকি বেসরকারি টেলিভিশন এটিএন নিউজে বিএনপি প্রার্থী অভিযোগ করে বলেন, নতুন ব্রীজে আওয়ামী গুন্ডা বাহিনী লেলিয়ে দিয়ে নাকি তার প্রচারণা পন্ড করা হয়েছে। আসলে ধানের শীষের প্রার্থী কর্ণফুলীতে এসেছেন কিনা সেটা আমার জানা নেই।’

তিনি বলেন, কর্ণফুলীর সর্বস্তরে যদি আপনারা উন্নয়ন পেতে চান তাহলে নৌকা মার্কায় ভোট চাই। কেনোনা বর্তমানে কর্ণফুলী উপজেলা নৌকার ঘাটি, জাবেদ ভাইয়ের দুর্গ।

পথ সভায় উপস্থিত ছিলেন কর্ণফুলী উপজেলা আ’লীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব ফারুক চৌধুরী, কর্ণফুলী উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক হায়দার আলী রনি, দক্ষিণ জেলা শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার ইসলাম আহমেদ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি শাহেদুর রহমান শাহেদ, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বানাজা বেগম নিশি, ডায়মন্ড সিমেন্ড এর পরিচালক আলহাজ্ব আজিম আলি, চরপাথরঘাটা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি আলহাজ্ব ছৈয়দ আহমদ প্রমূখ।

এছাড়াও যুবলীগ,শ্রমিকলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ, কৃষকলীগ ও ছাত্রলীগ সহ নানা অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Comments are closed.