ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ২-০ তে হোয়াইটওয়াশ

ওয়ান নিউজ ক্রীড়া ডেক্সঃ নিজেদের টেস্ট ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ইনিংস ব্যবধানে জয়ের স্বাদ পেল বাংলাদেশ। ঢাকা টেস্ট ইনিংস ও ১৮৪ রানে জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ২-০ তে হোয়াইটওয়াশ করেছে সাকিব আল হাসানের দল।

দুই টেস্টে হারের তিক্ত স্বাদ নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফর শেষে দেশে ফিরেছিল বাংলাদেশ। ওই দুটো হারের প্রতিশোধ নেয়া হলো। চট্টগ্রামে সিরিজের প্রথম ম্যাচে আড়াই দিনে জয়, ঢাকা টেস্টও তিন দিনে জয়। সেটিও আবার এক ইনিংস হাতে রেখে।

বছরের শেষ ম্যাচটা শেষ হয়েছে ইতিহাস গড়েই। নিজেদের ১৮ বছরের টেস্ট ইতিহাসে কোনো দলকে ফলোঅনে ব্যাটিং করানোর মতো ঘটনা ঘটালো বাংলাদেশ।

অভিষিক্ত সাদমান ইসলামের রঙ ছড়ানো অভিষেক। মিরপুরের মাঠে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের টানা শতকের ইনিংস। বিপক্ষ দলের টানা পাঁচ ব্যাটসম্যানকে বোল্ড করে ইতিহাস গড়া। এক ইনিংসে ৭ উইকেট ও টানা দুই ইনিংসে পাঁচ উইকেট নেয়া মিরাজের। শেষ ম্যাচটা দুর্দান্ত হলো টাইগারদের।

প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের শত রানের ইনিংস। সাদমান ইসলাম, সাকিব আল হাসান, লিটন দাসের অর্ধশত রানে ভর করে ১০ উইকেটে ৫০৮ রানের বিশাল সংগ্রহ।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ১১১ রান পর্যন্ত তুলে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সাকিব ৩ আর মিরাজ পেয়েছিল ৭ উইকেট।

প্রথম ইনিংসে ৩৯৭ রানে পিছিয়ে থেকে ফলোঅনে আবার ব্যাট করার সুযোগ পায় ক্যারিবীয়রা। তাতেও একই দশা সফরকারীদের।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

বাংলাদেশ ১ম ইনিংস: ৫০৮

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১ম ইনিংস: ৩৬.৪ ওভারে ১১১ (ব্রাফেট ০, পাওয়েল ৪, হোপ ১০, অ্যামব্রিস ৭, চেজ ০, হেটমায়ার ৩৯, ডোরিচ ৩৭, বিশু ১, রোচ ১, ওয়ারিক্যান ৫*, লুইস ০; মিরাজ ৭/৫৮, সাকিব ৩/২৭)।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ২ম ইনিংস: (ফলোঅন) ২১৩ (ব্রাফেট ১, পাওয়েল ৬, হোপ ২৫, অ্যামব্রিস ৪, চেজ ৩, হেটমায়ার ৯৩, ডোরিচ ৩, বিশু ১২, রোচ ৩৭, ওয়ারিকিয়ান ০, লুইস ২০* ; মিরাজ ৫/৫৯, তাইজুল ২/৪০, সাকিব ২/৬৫ নাঈম ১/৩৪)।

ফল: বাংলাদেশ ইনিংস ও ১৮৪ রানে জয়ী

সিরিজ: ২ ম্যাচ সিরিজে বাংলাদেশ ২-০তে জয়ী

ম্যান অব দা ম্যাচ: মেহেদী হাসান মিরাজ

ম্যান অব দা সিরিজ: সাকিব আল হাসান

Comments are closed.