রাষ্ট্রপতির সুনাম ক্ষুণ্ন করতে চান কাদের, সন্দেহ ফখরুলের

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সার্চ কমিটিতে কে এম হাসানকে রাখতে রাষ্ট্রপতির কাছে দলের পক্ষ থেকে নাম প্রস্তাবের কথা সর্বৈব মিথ্যা। এ কথার কোনো ভিত্তি নেই। তিনি বলেন, বিএনপির সন্দেহ রাষ্ট্রপতির সুনাম নষ্ট করতে ও তাঁকে বিতর্কিত করতে এ ধরনের কথা বলা হচ্ছে।

রোববার আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এক অনুষ্ঠানে দাবি করেছেন, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদকে সাবেক প্রধান বিচারপতি কে এম হাসানকে সার্চ কমিটিতে রাখতে নাম প্রস্তাব করেছেন। সেই হাসান সাহেব কি বিএনপির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ছিলেন না? তাহলে কোনটা পক্ষ, কোনটা নিরপেক্ষ?

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম একটি জাতীয় দৈনিককে বলেন, ওবায়দুল কাদেরের বক্তব্য সর্বৈব মিথ্যা ও অনভিপ্রেত। এটি একেবারেই সঠিক নয়। বিএনপির চেয়ারপারসন রাষ্ট্রপতির কাছে কোনো নাম দিয়েছেন কি দেননি, সেটা তো রাষ্ট্রপতিই বলতে পারবেন। অন্য কেউ নয়।

বিএনপির এই নেতা বলেন, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের এই বক্তব্যে সন্দেহ জাগাটা অমূলক নয় যে তিনি রাষ্ট্রপতিকে বিতর্কিত করতে, রাষ্ট্রপতির সুনাম ক্ষুণ্ন করতে এমন কথা বলেছেন। তিনি বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের এ কথা বলার কেউ নন। রাষ্ট্রপতি নিশ্চয়ই তাঁর সঙ্গে এ নিয়ে কথা বলেননি। ওবায়দুল কাদেরের এই বক্তব্যের উদ্দেশ্য নিয়ে সন্দেহ থেকেই যায়।’

উল্লেখ্য, গত ১৮ ডিসেম্বর নির্বাচন কমিশন গঠন নিয়ে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সংলাপ করে বিএনপি। ওই দিন রাষ্ট্রপতিকে সার্চ কমিটিতে রাখার জন্য কয়েকজনের নাম প্রস্তাব করেন দলটির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। রাষ্ট্রপতির কার্যালয় বা অন্য কোনো সূত্র থেকে কারও নাম প্রকাশ করা হয়নি।

Comments are closed.