উইকিপিডিয়ায় বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট গাঙ্গুলি!

ওয়ান নিউজ ক্রীড়া ডেক্সঃ  আইনি জটিলতা ও টালবাহানার পর সুপ্রিম কোর্ট আগামী মঙ্গলবার (২৪ জানুয়ারি) ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের নতুন প্রশাসকদের নাম ঘোষণা করবে। কিন্তু তার আগেই সুপ্রিম কোর্টকে কার্যত বুড়ো আঙুল দেখিয়ে উইকিপিডিয়ায় বিসিসিআই বোর্ড কমিটিতে সৌরভ গাঙ্গুলিকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে দেখানো হয়েছে। যা দেখে বিস্মিত ক্রিকেট মহল।

 

গত ৩ জানুয়ারি অনুরাগ ঠাকুরকে বোর্ড থেকে অপসারিত করা হয়। এরপর বোর্ডকর্তাদের এত সমীকরণ। এর মাঝে কখন বোর্ড সভাপতির পদে বহাল হয়ে গেলেন সৌরভ গাঙ্গুলি! আর বিসিসিআই’র সদর দপ্তর মুম্বই নয়, কলকাতাকে দেখানো হয়েছে। এত বড় খবর, অথচ কেউ জানতেও পারল না? উইকিপিডিয়ার এই ভুল তথ্যে ক্রিকেটবিশ্ব এখনও বিভ্রান্ত।

 

উইকিপিডিয়ার দাবি, বোর্ডের সভাপতির পদে নির্বাচিত হয়েছেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক সিএবি’র বর্তমান প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলি। কিন্তু নির্বাচন হল কোথায়? গত ৩ জানুয়ারি, বোর্ডের সভাপতি পদ থেকে অপসারিত করা হয়েছে অনুরাগ ঠাকুরকে। সরে যেতে হয়েছে বোর্ডের অন্য শীর্ষকর্তাদেরও। রাজ্য ক্রিকেট সংস্থাতেও হয়েছে আমুল পরিবর্তন।

 

 

কিন্তু উইকিপিডিয়ার মতে, গত ১৯ জানুয়ারি বোর্ডের সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন সৌরভ। শুধু এটুকুই নয়, মুম্বাই থেকে বোর্ডের প্রধান দপ্তর সরিয়ে আনা হয়েছে কলকাতাতে। খবর প্রকাশ্যে আসতে টনক নড়ে যায় ক্রিকেট কর্তাদেরও।

 

গত ১৯ জানুয়ারি বোর্ড সভাপতি হিসেবে প্রথমবার সৌরভ গাঙ্গুলির নাম দেখা যায় উইকিপিডিয়ায়। এরপর আজ মোট ১০ বার বোর্ডের উইকিপিডিয়ার পেজ সম্পাদিত হয়েছে। সৌরভের নাম আর নেই। সম্পাদনা করে এবার সেই জায়গায় এসে গেছে অন্য নাম।

 

এখনও সর্বোচ্চ আদালত ও লোধা কমিটির নির্দেশ মতো বোর্ডের প্রশাসন তৈরি করার পদ্ধতি চলছে। কিন্তু এর মাঝে উইকিপিডিয়ায় এই তথ্য সামনে আসায় নতুন করে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে বলে দাবি ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের। এতে সুপ্রিম কোর্টেরও অবমাননা হচ্ছে বলে দাবি আইনজীবীদের।

 

এদিকে, রবিবার ইডেনে ভারত-ইংল্যান্ড তৃতীয় তথা শেষ ওয়ানডে ম্যাচের চূড়ান্ত প্রস্তুতি চলছে। এই ম্যাচের মধ্যে সিএবি’র পক্ষ থেকে সংবর্ধনা দেয়া হবে সদ্য প্রাক্তন হওয়া অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনিকে। তার মাঝে এই খবর ছড়িয়ে পড়ায় অস্বস্তিতে পড়েছেন স্বয়ং সৌরভ গাঙ্গুলি৷

Comments are closed.