আপডেটঃ
কক্সবাজারের মানবতার শ্রেষ্ট মানব সেবক ড়াক্তার রেজাউল করিম মনছুরযেখানে সেখানে কান পরিষ্কার করবেন নাসাকিবের না থাকাটা আমার জন্য বাড়তি দায়িত্ব : মিরাজআন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘আইইই ডে’ পালিতইতিহাসে ১ম বার মার্কিন সেনার বৃহত্তম কমান্ডের দায়িত্বে নারী!৩৭ বছর পর ইরানের মেয়েরা ফুটবল মাঠেআবার নির্বাসনে তনুশ্রী?সৌদি বাদশাহর সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠককর্ণফুলীতে মামুন হত্যার আসামিদের গ্রেফতারের দাবিতে সড়ক অবরোধ ও বিক্ষোভকুমারীপূজা উপলক্ষে হিলি সীমান্তে বিজিবিকে মিষ্টি উপহার দিয়ে শুভেচ্ছা জানিয়েছে ভারতী বিএসএফবেনাপোল সীমান্তে বিপুল পরিমাণ ফেনসিডিলসহ ২ পাচারকারী আটকসব সদস্য রাষ্ট্র একসঙ্গে কাজ করলে শান্তি নিশ্চিত হয় : স্পিকারনির্বাচন কবে, জানতে চাইলেন মার্কিন কূটনীতিকসভাপতি কমল এমপি, সাধারণ সম্পাদক হুদা বঙ্গবন্ধু পরিষদ কক্সবাজার জেলা কমিটি অনুমোদনযশোরে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

যে দানে চরম শত্রু থেকে বন্ধু হলেন প্রিয়নবি

Islam-Dan.jpg

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ দান-সাদকা এমন এক ইবাদত; যা আল্লাহ তাআলা নিজ হাতে গ্রহণ করেন। আর এর বিনিময় তিনি অনেক গুণ বেশি দান করেন। কুরআন এবং সুন্নায় দানের অনেক ফজিলত ঘোষিত হয়েছে।

দান এমন এক ইবাদত যা মানুষকে শত্রু থেকে বন্ধুতে রুপান্তরিত করে দেয়। আবার সামর্থ্য না থাকা সত্ত্বেও কেউ যদি সামান্য কোনো জিনিসও দান করে তার মর্যাদাও আল্লাহর কাছে অনেক বেশি।

তাইতো কেউ যদি সাহায্য প্রার্থনা করে; তাকে খালি হাতে ফেরত দেয়া উচিত নয়। যত কমই হোক সাহায্য প্রার্থীকে দান করা উচিত। আর সাহায্য প্রার্থীও দান সাদকা পাওয়ার হক রাখে।

মানুষকে দানের প্রতি উৎসাহিত করতে প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের অসংখ্য হাদিস থেকে ৩টি হাদিস তুলে ধরা হলো-

দানের ফলে শত্রু বন্ধুতে পরিণত হয়

– হজরত সাফওয়ান ইবনে উমাইয়া রাদিয়াল্লাহু আনহু বর্ণনা করেন, হুনাইনের যুদ্ধের দিন রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম আমাকে কিছু (গনিমতের) মাল দান করলেন। (তখন) তিনি আমার দৃষ্টিতে সৃষ্টির মধ্যে সবচেয়ে ঘৃণ্য দুশমন ছিলেন। আমাকে তিনি দান করতে থাকলেন। যার ফলে তিনিই আমার কাছে সৃষ্টিকুলের মাঝে সবচেয়ে পছন্দনীয় লোক হয়ে গেলেন।’ (বুখারি ও মুসলিম)

দান-সাদকা পাওয়া গরিবের হক

আবদুর রহমান ইবনে বুজাইদ রাহমাতুল্লাহি আলাইহি তার দাদি উম্মু বুজাইদ রাদিয়াল্লাহু আনহা থেকে বর্ণনা করেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের কাছে যে সব নারী বাইআত গ্রহণ করেছিলেন তিনি তাদের অন্তর্ভূক্ত। তিনি রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে বললেন, ‘ভিক্ষুক এসে আমার দরজায় দাঁড়ায়। অথচ আমার হাতে (কাছে) তাকে দেয়ার মতো কিছুই ছিল না। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তাকে বললেন, ‘যদি তুমি (পশুর পায়ের) একটি ক্ষুর (খুবই সামান্য জিনিস) ছাড়া তাকে দেয়ার মতো আর কিছু না পাও; তবে তা-ই তার হাতে তুলে দাও।’ (তিরমিজি, আবু দাউদ)

দানের প্রতিদান আল্লাহ যেভাবে বাড়িয়ে দেন

হজরত সাঈদ ইবনে ইয়াসির রাদিয়াল্লাহু আনহু থেকে বর্ণিত তিনি হজরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু আনহুকে বর্ণনা করতে শুনেছেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘যে লোক বৈধ উপার্জন থেকে দান খয়রাত করে, আর আল্লাহ তাআলা হালাল ও পবিত্র মাল ছাড়া গ্রহণ করে না। সেই দান দয়াময় রহমান নিজ ডান হাতে গ্রহণ করেন, তা যদি সামান্য একটি খেজুর হয় তাহলেও। এটা দয়াময় রহমানের হাতে বাড়তে বাড়তে পাহাড় হতেও বড় হয়ে যায়। যেভাবে তোমাদের কেউ তার দুধ ছাড়ানো গাভী বা ঘোড়ার বাচ্চাকে লালন-পালন করে থাকে।’ (তিরমিজি, বুখারি ও মুসলিম)

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে সুখে-দুঃখে সর্বাবস্থায় গরিব অসহায়দেরকে দান করার তাওফিক দান করুন। দানের মাধ্যমে নিজের প্রয়োজন পূরণে আল্লাহর সাহায্য লাভের তাওফিক দান করুন।

Top