আপডেটঃ
সৌদি কনস্যুলেট খাসোগিকে খুঁজবেন তুর্কি তদন্তকারীরালালন শাহের ১২৮ তম তিরোধান দিবসপর্যটক ও পূণ্যার্থীদের দুর্ভোগ… রামু চাবাগান- উত্তর মিঠাছড়ি সড়কে অসংখ্য গর্ত ॥ সংস্কার জরুরীচট্টগ্রামে ঝুঁকিপূর্ণ ১৩টি পাহাড়ে অবৈধ বসবাসকারীকে সরানো যাচ্ছেনাকর্ণফুলীতে চলছেনা গাড়ি: আরাকান মহাসড়কে ধর্মঘটফেসবুকে নায়িকা সানাই এর ২৭৮টি ভুয়া অ্যাকাউন্ট,থানায় জিডিসেন্টমার্টিনে রাত্রিকালীন নিষেধাজ্ঞা: পর্যটন খাতে নেতিবাচক প্রভাবের আশঙ্কাআশা ইউনিভার্সিটিতে সুচিন্তা’র জঙ্গিবাদবিরোধী সেমিনারশাহপরীরদ্বীপে ক্ষতিগ্রস্ত ৩৪ পরিবার পেল নগদ টাকাসহ ৩০ কেজি করে চালবেনাপোল কাস্টমসে ১কেজি ৭শ গুড়ো সোনা সহ আটক ১এবার ইতালিতে পুরস্কৃত তৌকীরের ‘হালদা’বাংলাদেশের নিপীড়িত সাংবাদিকদের পক্ষে যুক্তরাজ্যবাংলাদেশ এখন পিছিয়ে পড়া প্রতিবেশী নয় : ভারতীয় গণমাধ্যমআখেরি চাহার সোম্বা ৭ নভেম্বরব্রাজিলকে বার্তা দিল আর্জেন্টিনা

হল থেকে ছাত্রী বের করে দেয়ার প্রতিবাদে বিকেলে বিক্ষোভ

cota.jpg

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ রাতের আঁধারে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) কবি সুফিয়া কামাল হল থেকে কয়েকজন ছাত্রীকে বের করে দেয়ার প্রতিবাদে বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। বের করে দেয়া ছাত্রীদের মধ্যে রয়েছেন অন্তি (পদার্থ), রিমি (পদার্থ), শারমিন (গণিত)।

আজ শুক্রবার বিকেলে বিক্ষোভ মিছিল করবে সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।

ছাত্রীদের অভিযোগ, গভীর রাতে সুফিয়া কামাল হল থেকে প্রায় ১০ শিক্ষার্থীকে বের করে দেয়া হয়েছে। হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সাবিতা রেজওয়ানা রহমান তাদের বের করে দেন। মেয়েদের মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে চেক করা হয়। রাতে বাড়িতে ফোন দিয়ে অভিভাবককে আসতে বলা হয়।

এছাড়া হল থেকে বের করে দেয়া বাকিদের নাম পাওয়া যায়নি। সংখ্যা আরও বেশি হবে বলে দাবি করেছেন বেশ কয়েকজন ছাত্রী। তারা বলেন, প্রাধ্যক্ষ অন্য মেয়েদের হল থেকে বের হতে দিচ্ছেন না। ফেসবুকে যেন কোনো ধরনের পোস্ট দেয়া না হয় সে ব্যাপারেও হুঁশিয়ার করছেন।

এদিকে ছাত্রীদের হল থেকে বের করে দেয়ার খবর জানাজানি হলে বৃহস্পতিবার রাত দুইটার দিকে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারী বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন ও যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নুরু সুফিয়া কামাল হলের সামনে উপস্থিত হন। এসময় তারা সেখানে বিক্ষোভ করেন।

এসময় সংগঠনের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরুল হক নুরু এ বিক্ষোভ কর্মসূচির ঘোষণা দিয়ে তিনি বলেন, যদি কেউ অপরাধ করে থাকে তাহলে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইনে তার বিচার হবে। কিন্তু রাতের অন্ধকারে কেন অভিভাবক ডেকে তাদের হল থেকে বের করে দেয়া হচ্ছে?

হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সাবিতা রেজওয়ানা রহমান তাদের বের করে দেন। এছাড়া হল প্রাধ্যক্ষ মোবাইল চেকসহ নানাভাবে ভয়ভীতি দেখান বলেও অভিযোগ করেন শিক্ষার্থীরা।

এ বিষয়ে ঢাবি উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামান বলেন, হল থেকে ছাত্রীদের কেন বের করে দেয়া হচ্ছে সেটি প্রাধ্যক্ষ ভালো বলতে পারেন। তবে দুই-তিনজনকে তাদের অভিভাবকের হাতে দেয়া হয়েছে শুনেছি। আর রাতে কেন বের করা হচ্ছে সেটি ম্যাম ভালো বলতে পারেন।

Top