আপডেটঃ
সু-শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে – নোমান হোসেনজনবল সংকট ফুলছড়ি রেন্জ বেপরোয়া বনদস্যুরাখুটাখালীর পীর হাফেজ মাওলানা আবদুল হাই হুজুর আর নেইরামুর অবকাশ কমিউনিটি সেন্টারে ইউএনও’র নেতৃত্বে ভ্রাম্যমান আদালতের  অভিযান ॥ মাদক ও জুয়ার সামগ্রীসহ আটক ৪মোমেন হওয়ার জন্য পরিপূর্ণ ইসলামে প্রবেশ করুনডুলাহাজারা ইসলাম প্রচার ইসলামী তরুণ সংঘের নতুন কমিটি গঠিতনাইক্ষ্যংছড়িতে ৪ জন অপহরনঃ মুক্তিপন দাবীমহেশখালীতে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যানিজ দেশে ফিরে যেতে রোহিঙ্গাদের ছয় দফা পূরণ করতে হবেনাইক্ষ্যংছড়ি দোছড়িতে চারজন কৃষক অপহরনচুনতির বিভিন্ন স্কুলে ৯৭ ব্যাচ এর উদ্যোগে দরিদ্র শিশুদের মাঝে পোশাক বিতরণঃকর্ণফুলীতে ওয়ারেন্টভূক্ত আসামী গ্রেফতার,ছাড়িয়ে নিতে জোর তদবিরঃশ্রীলঙ্কাকে গুঁড়িয়ে দিল টাইগাররাআন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়ার আহ্বান মির্জা ফখরুলেরবিজয়ের পথে বাংলাদেশ

তীব্র শীতের কাঁপুনি দূর করতে চান?

Winter.jpg

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ দেশজুড়ে বইছে হাড় কাঁপানো শৈত্যপ্রবাহ। শীতটা বেশ জাঁকিয়েই বসেছে কিছুদিন যাবত। ঠাণ্ডায় জমে যাওয়ার মত অবস্থা। যা গত ৫০ বছরের মধ্যে দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রার রেকর্ড।

সোয়েটারের ওপর জ্যাকেট আর জ্যাকেটের ওপরে শাল পরেও যেন শীত কমছে না। বাইরে বেরুনোর কথা শুনলেই লেপের নিচে যাওয়ার কথা মাথায় আসে। কিন্তু কাজের ব্যস্ততায় বাইরে তো বের হতেই হবে। এই তীব্র শীতের মধ্যে নিজেকে কি একটু উষ্ণ রাখতে চান না? শরীররের ভেতরে আপনাকে উষ্ণতা যোগাতে পারে একমাত্র খাবার। শীতকালে শরীরকে গরম রাখার জন্য নির্দিষ্ট খাবারগুলো অত্যন্ত উপযোগী।

মরিচ
মরিচের মধ্যে ক্যাপসাসিন নামে এক ধরনের উপাদান থাকে যা ত্বকে জ্বালা অনুভূতি দেয় ও শরীরকে শীতকালে গরম রাখে।

পেঁয়াজ
আপনাকে ঘামিয়ে দিতে পেঁয়াজের বড় ভূমিকা রয়েছে। পেঁয়াজ শরীরকে গরম রাখার পাশাপাশি শীতজনিত অনেক রোগ থেকে মুক্তি দেয়।

আদা চা
শীতের সময় নিজেকে গরম রাখার সবচেয়ে সহজ উপায় হল এক কাপ আদা চা। এই আদা চা খাওয়ার পরেই আপনি পার্থক্যটা বুঝবেন। আগের চেয়ে গরম লাগতে শুরু করবে।

হলুদ
হলুদ অ্যান্টিসেপটিক হওয়ার পাশাপাশি হলুদে এমন উপকরণ থাকে যাতে শীতের সময় ঠান্ডাটা কম লাগে। তাই শীতের সময় সব রান্নাতেই হলুদ দিন।

মশলাদার স্যুপ
শীতের সন্ধ্যায় গরম স্যুপ শরীরকে গরম রাখতে সাহায্য করে। সঙ্গে সবজির পুষ্টি জোগাতে সাহায্য করে।

মশলা
মশলাদার রান্না শরীরকে গরম রাখে। তা বলে বেশি পরিমাণে মশলাদার খাবার খাওয়া উচিত নয়। শরীর গরম করে আপনার স্বাস্থ্যের ক্ষতি করতে পারে। তাই মশলাদার খাবার খেলে অনুপাতে পানি খেতে হবে।

শুকনো ফল
খেজুর, অ্যাপ্রিকট ও অন্যান্য শুকনো ফল আপনার শরীরের যন্ত্রসমূহকে গরম ও স্বাভাবিক রাখে।

লাল মাংস
খাসি ও গরুর মাংস শরীরের তাপমাত্রা বাড়াতে সাহায্য করে। তবে তা বেশি পরিমাণে খাওয়া উচিত নয়।

Top