আপডেটঃ
সব সদস্য রাষ্ট্র একসঙ্গে কাজ করলে শান্তি নিশ্চিত হয় : স্পিকারনির্বাচন কবে, জানতে চাইলেন মার্কিন কূটনীতিকসভাপতি কমল এমপি, সাধারণ সম্পাদক হুদা বঙ্গবন্ধু পরিষদ কক্সবাজার জেলা কমিটি অনুমোদনযশোরে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহতহিলিতে জাতীয় ইদুঁর নিধন অভিযানের উদ্বোধনসৌদি কনস্যুলেট খাসোগিকে খুঁজবেন তুর্কি তদন্তকারীরালালন শাহের ১২৮ তম তিরোধান দিবসপর্যটক ও পূণ্যার্থীদের দুর্ভোগ… রামু চাবাগান- উত্তর মিঠাছড়ি সড়কে অসংখ্য গর্ত ॥ সংস্কার জরুরীচট্টগ্রামে ঝুঁকিপূর্ণ ১৩টি পাহাড়ে অবৈধ বসবাসকারীকে সরানো যাচ্ছেনাকর্ণফুলীতে চলছেনা গাড়ি: আরাকান মহাসড়কে ধর্মঘটফেসবুকে নায়িকা সানাই এর ২৭৮টি ভুয়া অ্যাকাউন্ট,থানায় জিডিসেন্টমার্টিনে রাত্রিকালীন নিষেধাজ্ঞা: পর্যটন খাতে নেতিবাচক প্রভাবের আশঙ্কাআশা ইউনিভার্সিটিতে সুচিন্তা’র জঙ্গিবাদবিরোধী সেমিনারশাহপরীরদ্বীপে ক্ষতিগ্রস্ত ৩৪ পরিবার পেল নগদ টাকাসহ ৩০ কেজি করে চালবেনাপোল কাস্টমসে ১কেজি ৭শ গুড়ো সোনা সহ আটক ১

বৃষ্টি আইনে আবারও পাকিস্তানকে হারালো নিউজিল্যান্ড

New.jpg

ওয়ান নিউজ ক্রীড়া ডেক্সঃ আবারও বৃষ্টি, আবারো নিউজিল্যান্ডের জয়। প্রথম ওয়ানডেতে ওয়েলিংটনে যেভাবে বৃষ্টি আইনে সফরকারী পাকিস্তানকে ৬১ রানে হারিয়ে সিরিজ সূচনা করেছিল নিউজিল্যান্ড, মঙ্গলবারও সেই বৃষ্টিতেই ভেসে গেছে পাকিস্তানের জয়ের স্বপ্ন।

নেলসনে দ্বিতীয় ওয়ানডেতে ডাক ওয়ার্থ লুইস পদ্ধতিতে ৮ উইকেটের জয় তুলে নিয়ে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেছে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড।

টস জয়ী পাকিস্তানের ৯ উইকেটে ২৪৬ রানের জবাবে ১৪ ওভারে দুই উইকেটে নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ যখন ৬৪ তখনই বৃষ্টির কারণে দুই ঘণ্টারও বেশী সময় খেলা বন্ধ থাকে। পুনরায় খেলা শুরু হলে নিউজিল্যান্ডের সামনে জয়ের নতুন লক্ষ্য দাঁড়ায় ২৫ ওভারে ১৫১। অর্থাৎ বাকি ১১ ওভারে জয়ের জন্য নিউজিল্যান্ডের প্রয়োজন ছিল ৮৭ রান।

নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন বলেছেন, ‘ইনিংসের শেষের দিকে পাকিস্তান স্কোর সমৃদ্ধ করার চেষ্টা করেছে। ওই সময় পাকিস্তান কিছু পার্টনারশীপও গড়ে তোলার চেষ্টা করে যে কারণে মোটামুটি একটা লড়াকু স্কোর তারা সংগ্রহ করে। কিন্তু আমার মনে হয় বৃষ্টির কারণে ম্যাচ বন্ধ থাকাটা আমাদের জন্য কিছুটা হলেও সুবিধা এনে দিয়েছে। তবে এ ক্ষেত্রে মার্টিন গাপটিল ও রস টেইলরের অসাধারণ পার্টনারশীপের প্রশংসা করতেই হয়। যে কারণে সাত বল বাকি থাকতে নিউজিল্যান্ডের জয় সম্ভব হয়েছে।’

ম্যাচ বন্ধ হবার আগে ৪০ বলে ৩১ রানে অপরাজিত থাকা ওপেনিং ব্যাটসম্যান গাপটিল শেষ পর্যন্ত ৭১ বলে ৮৬ রানে অপরাজিত ছিলেন। অন্যদিকে ৪৩ বলে টেইলরের ব্যাট থেকে এসেছে অপরাজিত ৪৫ রান। তৃতীয় উইকেটে এই জুটি ম্যাচজয়ী ১০৪ রান যোগ করেন।

এদিকে পাকিস্তানি অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ বলেছেন, ‘ব্যাটিং নিয়ে আমি দারুন হতাশ। প্রথম ১০ ওভার আমাদের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ছিল। কিন্তু ওই ১০ ওভারেই আমরা বেশকটি উইকেট হারিয়েছি। তবে লোয়ার অর্ডারে ব্যাটসম্যানরা ভাল করার চেষ্টা করেছে।’

টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়া পাকিস্তানের জন্য টপ অর্ডারে মোহাম্মদ হাফিজের ৬০ রান ছাড়া তেমন কোনো উল্লেখযোগ্য ইনিংস ছিল না। ৩৭ ওভারে ৭ উইকেটে পাকিস্তান মাত্র ১৪১ রান সংগ্রহ করে। অষ্টম উইকেটে শাদাব খানের ৫২ ও হাসান আলীর ৫১ রানে ৭০ রানের পার্টনারশীপ না হলে সফরকারীদের ইনিংস হয়ত আরও আগেই থেমে যেত।

তারপরেও প্রথম ১০ ওভারের মধ্যে ৪৭ রানে কলিন মুনরো (০) ও উইলিয়ামসকে (১৯) ফিরিয়ে দিয়ে পাকিস্তান সিরিজে সমতা ফেরাতে কিছুটা আশাবাদী হয়ে উঠেছিল। কিন্তু টেইলর ও গাপটিল ক্রিজে আসার পরে সব পরিসংখ্যান পাল্টে যায়।

আগামী শনিবার ডানেডিনে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর :

পাকিস্তান ৯ উইকেটে ২৪৬ (হাফিজ ৬০, শাদাব ৫২, হাসান ৫১ : ফার্গুসন ৩-৩৯, এ্যাস্টেল ২-৫০, সাউদি ২-৫৭)
নিউজিল্যান্ড ২ উইকেটে ১৫১, ২৩.৫ ওভার (গাপটিল ৮৬*, টেইলর ৪৫* : আমির ১-১৮, ফাহিম ১-৩০)

ফল : নিউজিল্যান্ড ৮ উইকেট জয়ী (ডার্ক ওয়ার্থ লুইস পদ্ধতি)
সিরিজ : পাঁচ ম্যাচের সিরিজে নিউজিল্যান্ড ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে
ম্যান অব দ্য ম্যাচ : মার্টিন গাপটিল (নিউজিল্যান্ড)

Top