আপডেটঃ
সু-শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে – নোমান হোসেনজনবল সংকট ফুলছড়ি রেন্জ বেপরোয়া বনদস্যুরাখুটাখালীর পীর হাফেজ মাওলানা আবদুল হাই হুজুর আর নেইরামুর অবকাশ কমিউনিটি সেন্টারে ইউএনও’র নেতৃত্বে ভ্রাম্যমান আদালতের  অভিযান ॥ মাদক ও জুয়ার সামগ্রীসহ আটক ৪মোমেন হওয়ার জন্য পরিপূর্ণ ইসলামে প্রবেশ করুনডুলাহাজারা ইসলাম প্রচার ইসলামী তরুণ সংঘের নতুন কমিটি গঠিতনাইক্ষ্যংছড়িতে ৪ জন অপহরনঃ মুক্তিপন দাবীমহেশখালীতে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যানিজ দেশে ফিরে যেতে রোহিঙ্গাদের ছয় দফা পূরণ করতে হবেনাইক্ষ্যংছড়ি দোছড়িতে চারজন কৃষক অপহরনচুনতির বিভিন্ন স্কুলে ৯৭ ব্যাচ এর উদ্যোগে দরিদ্র শিশুদের মাঝে পোশাক বিতরণঃকর্ণফুলীতে ওয়ারেন্টভূক্ত আসামী গ্রেফতার,ছাড়িয়ে নিতে জোর তদবিরঃশ্রীলঙ্কাকে গুঁড়িয়ে দিল টাইগাররাআন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়ার আহ্বান মির্জা ফখরুলেরবিজয়ের পথে বাংলাদেশ

প্রাপ্তবয়স্কদের ইচ্ছায় হস্তক্ষেপ করা যাবে না: ভারতের সুপ্রিম কোর্ট

Supprem-Court-India.jpg

ওয়ান নিউজ ডেক্সঃ আমাদের সমাজে বারবারই প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হয় নারীদের। তাদের পোশাক পরা থেকে শুরু করে বাড়ির বাইরে যাওয়া পর্যন্ত সব কিছুতেই বাধা নিষেধ। তবে এ ধরণের অন্যায্য ব্যবহারের বিরুদ্ধে শুক্রবার ক্ষোভ প্রকাশ করেছে ভারতের শীর্ষ আদালত। স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন, একজন প্রাপ্তবয়স্ক নারী তার জীবন তার ইচ্ছে মতো বাঁচবেন। সেখানে হস্তক্ষেপ করার অধিকার কারো নেই।

এ ব্যাপারে প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্র এবং বিচারপতি এ এম খানউইলকার ও ডি ওয়াই চন্দ্রচূড়ের একটি ডিভিশন বেঞ্চ এই রায় দেন। তারা জানিয়েছেন, ১৮ বছর বয়স হওয়ার পর ছেলেমেয়ে নির্বিশেষে প্রত্যেকেরই নিজের ইচ্ছেমতো জীবন কাটানোর অধিকার আছে। সে ক্ষেত্রে অযথা আদালত কেন কারো আইনি রক্ষক হবে। একজন মেয়ের ব্যক্তি স্বাধীনতার সম্পূর্ণ অধিকার রয়েছে। সে ক্ষেত্রে মা বা বাবার কোনো কথায় ভুলে আদালতের সুপার গার্ডেন হওয়ার কোনো প্রশ্নই ওঠে না।

সুপ্রিম কোর্ট তার রায়ে স্পষ্ট জানিয়ে দেন, ভারতের সংবিধান প্রত্যেকের জন্যে এক। মেয়েদের ব্যক্তি স্বাধীনতা তাদের মৌলিক অধিকার। সেখানে সমাজ বা পরিবার-পরিজন কোনোরকম হস্তক্ষেপ করতে পারে না।

Top