জাতিসংঘের মানবাধিকার সম্মেলনে ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া রোহিঙ্গাদের ফেরাতে বাংলাদেশের দাবির পক্ষে সোচ্চার আহবানঃ

Dr.-Bidud.jpg

বিদেশ হতে কুটনীতিক প্রতিবেদকঃ

জাতিসংঘের মানবাধিকার সম্মেলনে ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া রোহিঙ্গাদের ফেরাতে বাংলাদেশের দাবির পক্ষে সোচ্চার আহবান জানান।

জেনেভা ,সুইজারল্যাণ্ড জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা আয়োজিত ৩০ নভেম্বর ও ১ ডিসেম্বর সম্মেলনে বিশ্বের নিপীড়িত নির্যাতিত মানুষের পক্ষে দাঁড়াতে বিশ্ববাসীকে আহবান জানান তিনি।

সম্মেলনে আগত বিভিন্ন দেশের মানবাধিকার কর্মীরা এতে যোগদান করেন।

সম্মেলনের চেয়ারপারসন সুদানের তারিক কুর্দির সভাপতিত্বে উদ্বোধনী দিনে হিউম্যান রাইটস কাউন্সিলের ভাইস প্রেসিডেন্ট সুইজারল্যাণ্ড ভেযেনতেন উইলগের , কানাডার ড. ফার্নান্দ ভার্নেস , ইটালির ল্যাম্বার্ট জেনিফার বক্তব্য রাখেন।

এর পরে বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিরা পর্যায়ক্রমে দুইদিন ধরে বিভিন্ন দেশের মাইনোরিটি ইস্যু নিয়ে বক্তব্য রাখেন।

তারা তাদের সমাজ ব্যবস্থায় সোশ্যাল মিডিয়া , শিক্ষা ব্যবস্থা ও সুশীল সমাজ এর করণীয় শীর্ষক আলোচনা খোলামেলা করেন।

এসময় ক্ষুদ্র জাতি গোষ্ঠীর উপর বিভিন্ন অত্যাচারের কথা ও উল্লেখ করেন। বাংলাদেশের পক্ষে সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগ এর সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া তার বক্তব্যে সাম্প্রতিক সময়ে মায়ানমার রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর উপর তাদের সরকারের অত্যাচারের কথা উল্লেখ করেন এবং বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে নারী পুরুষ শিশুদের অমানবিক জীবনের কথা তুলে ধরেন।

বাংলাদেশ সরকার এর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শুধুমাত্র মানবিকতার কারণে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের আশ্রয় প্রদান করেছেন বলে উল্লেখ করেন।

কিন্তু রোহিঙ্গাদের তাদের নিজ দেশ মায়ানমার ফিরিয়ে নিতে হবে। তাদের ফেরানোর জন্য আন্তর্জাতিক চাপ সৃষ্টির মাধ্যমে মায়ানমারকে বাধ্য করতে হবে।

এই জন্য বিশ্বমহলকে বাংলাদেশের পক্ষে দাঁড়াতে জোরালো যুক্তিপূর্ন আহবান জানান ডা. বিদ্যুৎ বড়ুয়া।

সম্মেলন শেষে হিউম্যান রাইটস কাউন্সিলের ভাইস প্রেসিডেন্ট সুইজারল্যাণ্ড ভেযেনতেন উইলগের হাতে সর্বইউরোপিয়ন আ.লীগের সাংঘঠনিক সম্পাদক বঙ্গবন্ধুর আত্নজীবিনীমুলক ও বই উপহার দেন।

Top