আইনি জটিলতায় জড়াচ্ছেন জেরিন!

Zareen-Khan.jpg

জেরিন খান

ওয়ান নিউজ বিনোদন ডেক্সঃ বলিউড অভিনেত্রী জেরিন খান। গত শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে এ অভিনেত্রীর আকসার-টু সিনেমাটি। তার কয়েকদিন আগে এর প্রচারণায় গিয়ে বিব্রত হয়েছিলেন তিনি। অল্পের জন্য শ্লীলতাহানির হাত থেকে বেঁচে যান। পরবর্তীতে নির্মাতাদের ওপর নানা অভিযোগ এনে নিজের রাগ উগরে দেন তিনি।

জেরিন দাবি করেন, সিনেমার প্রায় প্রতিটি দৃশ্যে তাকে খোলামেলা পোশাক পরাতে চেয়েছিলেন নির্মাতারা। সিনেমায় অতিরিক্ত মশলা যোগ করা হচ্ছিল। তারা চাইতেন তিনি নিজেকে খোলামেলাভাবে উপস্থাপন করুক। শুধু তাই নয়, সিনেমায় অকারণেই চুম্বনের দৃশ্য রাখা হয়েছিল বলেও অভিযোগ তোলেন এ অভিনেত্রী।

এদিকে জেরিনের এ ধরণের বক্তব্যে ভীষণ চটেছেন প্রযোজক নরেন্দ্র বালাজি। এ নিয়ে আইনি পদক্ষেপের কথাও ভাবছেন তিনি। এ প্রসঙ্গে ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে বালাজি বলেন, ‘আমার আইনজীবীর সঙ্গে আলোচনা করে বিষয়টি আইনি প্রক্রিয়ায় সমাধান করব। তাকে চিত্রনাট্য দেয়া হয়েছিল এবং সেখান থেকে কোনো কিছুই পরিবর্তন করা হয়নি। পোশাকের ব্যাপারে বলতে গেলে, তিনি প্রত্যেক পোশাকের অনুমোদন দিয়েছেন এবং মাউরিটিয়াসে শুটিংয়ের উদ্দেশ্যে যাওয়ার আগে মুম্বাইয়ে সব পরে দেখেছেন। আমি তার বক্তব্যে বুঝতে পারলাম না।’

এছাড়া জেরিন অভিযোগ করেন পরিচালক অনন্ত মহাদেবার সিনেমা সম্পর্কে পরিষ্কার কোনো ধারণা ছিল না। তবে এ ধরণের অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন এ পরিচালক। তিনি বলেন, ‘ইন্ডাস্ট্রিতে আমার মতো পূর্বপ্রস্তুতি কেউ নেয় না। সবাই আমার কাছে কম বাজেটের সিনেমা নিয়ে আসে পূর্ব পরিকল্পনার ও সুস্পষ্টতার জন্য। আমি অতিরিক্ত দৃশ্য শুটিং করার অভিযোগে অবাক হয়েছি। আমি মঞ্চের মতো মহড়া করিয়েছি। মহড়ার আগে প্রত্যেকটি দৃশ্যের ব্যাখ্যা দেয়া হয়েছে।’

সিনেমাতে অশ্লীল কিছু নেই জানিয়ে তিনি আরো বলেন, “জেরিন সম্ভবত এ ধরণের সিনেমার শুটিংয়ে অভ্যস্ত হতে পারেননি। চুম্বন দৃশ্যের ব্যাপারে আমি বলব, কয়েকটি চুম্বন দৃশ্য থাকলেই একটি সিনেমা ইরোটিক হয়ে যায় না। এখন প্রায় সব এমনকি করন জোহরের সিনেমাতেও চুম্বন দৃশ্য থাকে। কিন্তু আমরা চাইছিলাম না সেন্সর বোর্ডে এটি ‘এ’ (অ্যাডাল্ট) সার্টিফিকেট দিক। চেয়েছি নারীরাও সিনেমাটি দেখুক। এজন্য কিছু পরিবর্তন করা হয়েছে।”

Top